ঘর ভাঙার আতঙ্কে নাগরীর সেই গার্লফ্রেন্ডরা

শাহাবুদ্দীন নাগরী গ্রেফতারের পর নগরীর বেশ কিছু উচ্চবিত্ত পরিবারে আতঙ্ক বিরাজ করছে। নাগরী কবি, ঔপন্যাসিক, ছোটগল্পকার, সুরকার, গায়ক এবং নাট্যকার হিসেবে বাংলাদেশের সাংস্কৃতিক পরিমণ্ডলে পরিচিত। একজন আধুনিক রোম্যান্টিক কবি হিসেবেও পরিচিত শাহাবুদ্দীন নাগরী। তিনি নারী বন্ধুদের (গার্লফ্রেন্ড) নিয়ে আড্ডায় মেতে থাকতেন। ওইসব গার্লফ্রেন্ডরা এখন আতঙ্কে আছেন। কারণ রিমান্ডে তাদের পরিচয় বেরিয়ে আসতে পারে।

সূত্র বলেছে, শাহাবুদ্দীন নাগরীর গার্লফ্রেন্ডের সংখ্যা তিনি নিজেই সঠিক বলতে পারবেন না। তাই অনেকে ঘর ভাঙার ভয়ে আছেন।পুলিশ বলেছে রিমান্ডে আসামিদের ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। আর জিজ্ঞাসাবাদে আরও চাঞ্চল্যকর তথ্য পাওয়া যাবে। ১/১১ সেনা সমর্থিত শাসনের সময় আলোচিত দুর্নীতিবাজদের অন্যতম কাস্টমস কর্মকর্তা শাহাবুদ্দীন নাগরী রিমান্ডের প্রথম দিনেই চাঞ্চল্যকর তথ্য দিয়েছেন।নিহতের স্ত্রী ও শাহাবুদ্দীন নাগরী উভয়কেই মুখোমুখি জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে নিহত ব্যবসায়ী নুরুল ইসলাম হত্যার কথা স্বীকার না করলেও তাদের অনৈতিক সম্পর্কের বিষয়টি অস্বীকার করতে পারেননি তারা। পরকীয়ার সন্দেহেই নাগরীকে এ মামলায় আসামি করা হয়েছে বলে জানিয়েছে বাদীর ঘনিষ্ঠ সূত্র। নিউমার্কেট থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আতিকুল ইসলাম বলেন, ব্যবসায়ী নুরুল ইসলাম হত্যাকাণ্ড তার স্ত্রী নুরানী আকতার সুমি ও তার প্রেমিক শাহাবুদ্দীন নাগরীর অনৈতিক সম্পর্কের জের ধরে সংঘটিত হয়েছে, প্রাথমিকভাবে তেমন আভাসই মিলেছে। তবে ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদে জানা যাবে কীভাবে, কখন এ হত্যাকাণ্ড ঘটানো হয়েছে।

ওসি বলেন, বর্তমানে তদন্তের স্বার্থে এর বেশি কিছু বলা যাবে না। তবে এ হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে আরও কেউ জড়িত থাকতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

বাংলাদেশ সময়: ১৪১৫ ঘণ্টা, ২১ এপ্রিল ২০১৭

লেটেস্টবিডিনিউজ.কম/এস

শেয়ার করুন