শার্শায় গৃহবধূ ধর্ষণ মামলার তিন আসামি :৩ দিনের রিমান্ডে

যশোরের শার্শা উপজেলায় এক নারীকে গণধর্ষণের ঘটনায় গ্রেপ্তার তিন আসামিকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তিন দিনের রিমান্ড আবেদন মঞ্জুর করেছেন আদালত। আজ রোববার দুপুরে তাঁদের রিমান্ড মঞ্জুর করা হয়। এদিকে গতকাল শনিবার সন্ধ্যায় শার্শা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এম মশিউর রহমানকে বদলি করা হয়েছে। তবে পুলিশ বলছে, নিয়মিত বদলির অংশ হিসেবেই তাঁকে বদলি করা হয়েছে।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা পিবিআইয়ের পরিদর্শক শেখ মোনায়েম হোসেন জানান, জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আদালতে, আসামিদের ৫ দিনের রিমান্ড আবেদন করা হয়। শুনানি শেষে ৩ আসামিকে ৩ দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেন বিচারক। এদিকে, পুলিশের এসআই খাইরুল আলমের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ ওঠায় গত তেসরা সেপ্টেম্বর বিভাগীয় তদন্তের জন্য একটি কমিটি গঠন করা হয়। নির্ধারিত তিন কর্মদিবস শেষে আজ আদালতে প্রতিবেদন জমা দেয়ার কথা থাকলেও পারেনি কমিটি। সুষ্ঠু তদন্তের স্বার্থে আরো ৭ দিনের সময় বাড়ানোর আবেদন করা হয়েছে। স্বামীকে মাদক মামলায় ফাঁসিয়ে গত দোসরা সেপ্টেম্বর রাতে শার্শায় নিজ বাড়িতে গৃহবধূকে ধর্ষণের অভিযোগ ওঠে পুলিশের এসআই খাইরুল আলম ও তার সোর্স কামারুলের বিরুদ্ধে। এ সময় তাদের সহযোগিতা করে কাদের ও লতিফ। এ ঘটনায় নির্যাতিতা বাদী হয়ে একটি ধর্ষণ মামলা করেন।