সাড়ে ৩ মাস পর চট্টগ্রামে শতাধিক করোনা রোগী শনাক্ত

দেশে করোনায় টানা ২০ দিন মৃত্যুশূন্য

পার্বত্য চট্টগ্রামে সাড়ে ৩ মাস পর শতাধিক করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়েছে। সর্বশেষ গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন ১০৪ জনের দেহে করোনা শনাক্ত হয়েছে। সংক্রমণ হার ৫ দশমিক ৮৯ শতাংশ। এ সময়ে করোনায় আক্রান্ত হয়ে নগরীতে মারা গেছেন একজন।

আজ চট্টগ্রামের করোনা সংক্রান্ত হালনাগাদ পরিস্থিতি নিয়ে জেলা সিভিল সার্জন কার্যালয় থেকে প্রেরিত প্রতিবেদনে এ তথ্য জানা যায়।

উল্লেখ্য যে, সর্বশেষ গত বছরের সেপ্টেম্বর মাসে বেশ ক’বার সংক্রমিতের সংখ্যা একশ’ অতিক্রম করে। অক্টোবর, নভেম্বর ও ডিসেম্বর মাসে একদিনও আক্রান্ত তিন অংকের ঘরে পৌঁছায়নি। নভেম্বর ও ডিসেম্বরের অধিকাংশ সময় এক অংকের ঘরে ছিল রোগীর সংখ্যা। করোনাশূন্য দিনও কেটেছে একাধিকবার।

এ সময় সিভিল সার্জন কার্যালয়ের রিপোর্টে বলা হয়, ফৌজদারহাট বিআইটিআইডি, এন্টিজেন টেস্ট, শাহ আমানত বিমানবন্দর ও নগরীর দশ ল্যাবে গতকাল শনিবার চট্টগ্রামের ১ হাজার ৭৬৫ জনের নমুনা পরীক্ষা করলে নতুন ১০৪ জন পজিটিভ শনাক্ত হন। এর মধ্যে শহরের বাসিন্দা ৮৮ জন ও উপজেলার ১৬ জন। জেলায় করোনাভাইরাসে মোট শনাক্ত ব্যক্তির সংখ্যা এখন ১ লাখ ৩ হাজার ৮৪ জন। এর মধ্যে শহরের বাসিন্দা ৭৪ হাজার ৬৬৩ জন ও গ্রামের ২৮ হাজার ৪২১ জন। উপজেলায় আক্রান্তদের মধ্যে সীতাকুণ্ডে ৪ জন, ফটিকছড়িতে ৩ জন, রাউজান, হাটহাজারী, সাতকানিয়া ও আনোয়ারায় ২ জন করে এবং বাঁশখালীতে একজন। এ সময়ে করোনায় শহরে একজনের মৃত্যু হয়েছে। ফলে মৃতের সংখ্যা বেড়ে এখন ১ হাজার ৩৩৪ জন হয়েছে। এতে শহরের বাসিন্দা ৭২৪ জন ও গ্রামের ৬১০ জন।