‘বন্ধন এক্সপ্রেস’ ট্রেনে বিজিবি-জিআরপি পুলিশের হাতাহাতি

‘বন্ধন এক্সপ্রেস’ ট্রেনে বিজিবি-জিআরপি পুলিশের হাতাহাতি
‘বন্ধন এক্সপ্রেস’ ট্রেন - পুরোনো ছবি

বেনাপোলে ভারত থেকে আসা ‘বন্ধন এক্সপ্রেস’ ট্রেনে বিজিবির সঙ্গে জিআরপি পুলিশের হাতাহাতির ঘটনা ঘটেছে। এসময় মনিরুল ইসলাম (২৮) নামের পুলিশের এক সদস্যকে মারধর করে ক্যাম্পে নিয়ে যায় বিজিবি সদস্যরা।

আজ রোববার (১৮ সেপ্টেম্বর) সকাল ১০টায় ট্রেনে তল্লাশি চালানোর সময় ছবি তোলাকে কেন্দ্র করে এ হাতাহাতির ঘটনা ঘটে।

রেলওয়ে পুলিশ জানায়, ভারতের চিৎপুর রেলস্টেশন থেকে ছেড়ে আসা ‘বন্ধন এক্সপ্রেস’ ট্রেনটি সকাল ১০টা ৫ মিনিটে বেনাপোল স্টেশনে পৌঁছায়। ট্রেনটি স্টেশনে পৌঁছার পর বিজিবি সদস্যরা তল্লাশি চালানোর প্রস্তুতি নেয়। এ সময় রেল পুলিশের পক্ষ থেকে কাস্টমস কর্মকর্তা ছাড়া লাগেজ তল্লাশি করা যাবে না বলা হয়। এসময় সাদা পোশাকে দাঁড়িয়ে মুঠোফোনে ছবি তুলছিলেন মনিরুল ইসলাম। বিজিবি সদস্যরা তাকে মারধর করে গাড়িতে তুলে বেনাপোল বিজিবি ক্যাম্পে নিয়ে যায়।

এসময় তাকে রক্ষা করতে এগিয়ে গেলে বিজিবি সদস্যরা সেতাফুর রহমান আহত হন। তবে সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত মনিরুল ইসলাম বিজিবি ক্যাম্পে ছিলেন।

এ বিষয়ে খুলনা রেলওয়ে পুলিশ সুপার মো. রবিউল হাসান জানান, বিষয়টি সম্পর্কে তিনি কিছুই জানেন না।

যশোর ৪৯ বিজিবির কমান্ডিং অফিসার লে. কর্নেল শাহেদ মিনহাজ ছিদ্দিকী জানান, উভয়ের মধ্যে ভুল বোঝাবুঝি হয়েছে। বিষয়টি দ্রুত মীমাংসা হয়ে যাবে।