‘গানম্যান’ নিয়ে অনুশীলনে এলেন বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব

sakib-with-gunman

বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসানের কলকাতায় একটি কালীপূজার উদ্বোধনে থাকা নিয়ে ব্যাপক সমালোচনা হয়েছে। এমনকি ফেসবুকে এক যুবক তাকে কুপিয়ে হত্যা করার হুমকি পর্যন্ত দেন।

পরে র‍্যাব সেই ব্যক্তিকে গ্রেফতার করেছে। এসবের কারণেই বাড়তি নিরাপত্তা নিয়ে অনুশীলন করেছেন সাকিব।
বুধবার (১৮ নভেম্বর) সকালে সাকিব মিরপুরে আসেন অনুশীলন করতে। সেসময় তার সঙ্গে একজন গানম্যানকে দেখা যায়। বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) পক্ষ থেকেই এই নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।

এ বিষয়ে বিসিবির প্রধান নির্বাহী নিজামউদ্দিন চৌধুরী সুজন সাংবাদিকদের বলেন, ‘অবশ্যই বিষয়টি (প্রাণনাশের হুমকি) উদ্বেগজনক। এমন বিষয় কখনোই কাঙ্ক্ষিত হতে পারে না। আমরা সেটা জানার পর তাৎক্ষনিক ব্যবস্থা নিয়েছি। সরকারের সংশ্লিষ্ট নিরাপত্তা সংস্থাগুলোকে আমরা বলেছি। আপনারা দেখেছেন, তারাও যত তাড়াতাড়ি সম্ভব ব্যবস্থা গ্রহণ করেছেন। ‘

গত কয়েকদিন ধরে একের পর এক ঘটনা ঘটে চলেছে সাকিব আল হাসানকে ঘিরে। বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার এর আগেও নানারকম বিতর্কে জড়িয়েছেন।

তবে এবার এক বছর নিষেধাজ্ঞা শেষে দেশে ফেরার পর তাকে ঘিরে শুরু হয়েছে তিনটি বিতর্ক। দেশে ফেরার পরদিন করোনাবিধি না মেনে একটি সুপারশপ উদ্বোধন করা থেকে শুরু বিতর্কের। ওই অনুষ্ঠানে স্বাস্থ্যবিধির বিষয়গুলো মানা হয়নি এবং অনুষ্ঠানে অনেক মানুষের ভিড়ও দেখা গেছে।

এরপর বেনাপোল সীমান্ত দিয়ে কলকাতা যাওয়ার পথে সাকিবের হাত লেগে এক ভক্তের মোবাইল পড়ে যাওয়া নিয়ে বিতর্কের পালে আরও হাওয়া লাগে। এর ব্যাখ্যায় সাকিব তার ভিডিও বার্তায় বলেছেন যে, ওই ভক্ত তার অনুমতি ছাড়াই এবং স্বাস্থ্যবিধি না মেনে অনেকটা গায়ের ওপর ওঠে ছবি তোলার চেষ্টা করেছেন। এ সময় তাকে সরিয়ে দিতে গেলে সাকিবের হাত লেগে ওই ব্যক্তির ফোন পড়ে যায়।

বিতর্ক হিমালয় চূড়া স্পর্শ করে সাকিবের কলকাতায় পূজা উদ্বোধনের খবরে। অনেকেই ক্ষোভ প্রকাশ করতে থাকেন এ নিয়ে। এমনকি এজন্য তাকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকের লাইভে এসে প্রাণনাশের হুমকি দেন সিলেটের এক যুবক। পরে অবশ্য তাকে গ্রেপ্তার করে র‍্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‍্যাব)। এরপর ইউটিউবে ‘পূজা উদ্বোধন করিনি’ বলে জানান সাকিব।