মেয়ের কারণে গোপনে খাবার খান বাবা-মা

বিরল রোগে আক্রান্ত ছয় বছর বয়সী মেগান। একটু পর পরই ভীষণ ক্ষুধা পায় তার। আর এ কারণেই ঘন ঘন খাবার খেতে হয় তাকে। চিকিৎসা বিজ্ঞানে এই রোগের নাম প্রাডার উইলি সিনড্রম বা পিডব্লিউএস।

মেগান এডাম ফ্রিৎজেরাল্ড জন্মের পর থেকেই এই বিরল রোগটিতে আক্রান্ত। তার রোগের বর্তমান অবস্থা এমনই যে, একটু আগে খেয়ে পেট ভরলেও তার মনে হয় সে খালি পেটে আছে।

এছাড়া তার পাশে খাবার সংক্রান্ত কোনো শব্দ উচ্চারণ করলেও তার খাবার ইচ্ছে জেগে উঠতো। এ কারণে মেগানের বাবা-মা তার সামনে স্ন্যাক্স এবং ডিনার শব্দ উচ্চারণও করে না।

মেগানের মা ট্রেসি ফ্রিৎজেরাল্ড বলেন, খাবার বা খাবার সংক্রান্ত কোনো শব্দ মেগানের কানে গেলেই সে খাবারের জন্য ব্যস্ত হয়ে উঠে আর খাবার না পেলে সে খুব বিরক্ত করে।

তিনি জানান, তার খাবার সময় সময় হচ্ছে- সকাল ৮ টায় ব্রেকফাস্ট এরপরে আবার সকাল ১০ টায় হালকা কোনো স্ন্যাক্স, এরপর দুপুরে খেতে হয় মেগানকে। তারপর আবার দুপুর ২ টায় চা এবং হালকা স্ন্যাক্স। এরপর বিকেল ৪ টায় আবার খেতে হয় মেগানকে। এভাবে ৭ দিনে ২৪ ঘন্টাই তার খেতে হয়।

তবে মেগানের বাবা বলেন, এটা আবার আমার ৪ বছর বয়সের ছেলের জন্য খুব সমস্যার তৈরি করে। কারণ মেগানের সঙ্গে তাকে খাওয়ানো সম্ভব নয়। তাকে হয় আমার খাইয়ে দিতে হয় আর আমি ও তার বাবা গোপনে গোপনে খাবার খাই।

বাংলাদেশ সময় : ১৬৪৫ ঘণ্টা, ১৫ অক্টোবর, ২০১৭,
লেটেস্টবিডিনিউজ.কম/এ