চীনা ‘অস্কারে’ বাজিমাত ৮১ বছর বয়সী অভিনেত্রীর চেন শুর!

chen_shu-fang

চাইনিজভাষী চলচ্চিত্রের ‘অস্কার’ সংস্করণ হিসেবে খ্যাত ‘গোল্ডেন হর্স অ্যাওয়ার্ডস’। সেই ১৯৬২ সাল থেকে শুরু হয়ে প্রতি বছর অনুষ্ঠিত হচ্ছে তাইওয়ান-ভিত্তিক অ্যাওয়ার্ড প্রদান অনুষ্ঠান। তবে গত বছর থেকে এই আয়োজনে চীনের চলচ্চিত্রের অংশগ্রহণ বন্ধ করে দিয়েছে সেদেশের চলচ্চিত্র কর্তৃপক্ষ।

‘গোল্ডেন হর্স অ্যাওয়ার্ডস’র এ বছরের সব আলো নিজের দিকে টেনে নিয়েছেন ৮১ বছর বয়সী তাইওয়ানিজ অভিনেত্রী চেন শু-ফাং। ‘সেরা অভিনেত্র’’র পাশাপাশি জিতে নিয়েছেন ‘সেরা পার্শ্ব অভিনেত্রী’র পুরস্কারও।

শনিবার রাতে তাইওয়ানে ‘গোল্ডেন হর্স অ্যাওয়ার্ডসে’র এবারের আসর অনুষ্ঠিত হয়। ঘুম থেকে জেগে দেখে ভালোবাসা দিবস চলে গেছে, অথচ সে টেরই পায়নি- এমন এক পোস্ট অফিস কর্মীর জীবন ঘিরে সাজানো তাইওয়ানিজ চলচ্চিত্র ‘মাই মিসিং ভ্যালেন্টাইন’ জিতে নিয়েছে ‘সেরা চলচ্চিত্র’ ও ‘সেরা পরিচালক’সহ পাঁচটি পুরস্কার।

তবে সব ছাপিয়ে ‘গোল্ডেন হর্স অ্যাওয়ার্ডসে’র কেন্দ্রবিন্দুতে ছিলেন চলচ্চিত্র জগতে ছয় দশকেরও বেশি সময় কাটানো চেন শু-ফাং। ‘লিটল বিগ উইমেন’-এ অভিনয়ের জন্য ‘সেরা অভিনেত্রী’ এবং ‘ডিয়ার টেন্যান্ট’-এর জন্য ‘সেরা পার্শ্ব অভিনেত্রী’র পদক জিতেন তিনি।

এর আগে ‘গোল্ডেন হর্স অ্যাওয়ার্ডস’ পাওয়া তো দূরের কথা, একবারের জন্য মনোনয়নও পাননি তিনি!