প্রথমবার ইউএন উইমেনের নির্বাহী বোর্ডের সভাপতি হলেন রাবাব ফাতিমা

ইউএন উইমেনের নির্বাহী বোর্ডের সভাপতি হলেন রাবাব ফাতিমা

সর্বসম্মতিক্রমে ২০২২ সালের জন্য ইউএন উইমেন নির্বাহী বোর্ডের সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন জাতিসংঘে বাংলাদেশের স্থায়ী প্রতিনিধি রাবাব ফাতিমা। নিউ ইয়র্কে বাংলাদেশের স্থায়ী মিশনের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, গত মঙ্গলবার জাতিসংঘ সদরদপ্তরে ইউএন উইমেনের ৫ সদস্য বিশিষ্ট ব্যুরোর এই নির্বাচন হয়। তাতে সহ-সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন জাতিসংঘে আর্জেন্টিনা, ইউক্রেন, আইসল্যান্ড এবং সিয়েরালিওনের স্থায়ী প্রতিনিধিরা।

ইউএন উইমেনকে নির্বাহী পর্ষদ কৌশলগত দিক-নির্দেশনা দিয়ে থাকে। জাতিসংঘের এই সংস্থা লিঙ্গ সমতা ও নারীর ক্ষমতায়নের জন্য নিবেদিত। পর্ষদের সভাপতি হিসেবে বাংলাদেশ ইউএন উইমেনের কাজকে আরও বেগবান করতে অবদান রাখার সুযোগ পাবে। সভাপতি নির্বাচিত করায় বোর্ড-সদস্যদের রাষ্ট্রদূত ফাতিমা ধন্যবাদ জানান। করোনা মহামারীর এই সময়ে নারী ও মেয়েরা যে সব চ্যালেঞ্জের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে, তা মোকাবিলায় ইউএন উইমেনের বোর্ড সদস্যরা বাংলাদেশের নেতৃত্বের প্রতি যে আস্থা রেখেছেন, সেজন্যও তিনি ধন্যবাদ জানান।

জাতিসংঘে বাংলাদেশের স্থায়ী প্রতিনিধি রাবাব ফাতিমা বলেন, “আমাদের অবশ্যই নিশ্চিত করতে হবে যে, কোভিড সঙ্কট থেকে পুনরুদ্ধারের পরিকল্পনাতেই লিঙ্গ-সমতা নিশ্চিত করা হয়েছে এবং সরকার, বেসরকারি খাত ও এনজিওগুলো তা বাস্তবায়নে একত্রে কাজ করছে। ইউএন উইমেনকে প্রয়োজনীয় দিক নির্দেশনা প্রদান ও সম্পদ সরবরাহ করতে হবে, যাতে প্রতিষ্ঠানটি চ্যালেঞ্জ মোকাবিলার সব প্রচেষ্টার সামনে থাকতে পারে।”

ইউএন উইমেন এর নির্বাহী পরিচালক রাষ্ট্রদূত সিমা বাহাউস নব-নির্বাচিত সভাপতিকে স্বাগত জানান। এ সময় তিনি বলেন, ইউএন উইমেন নতুন সভাপতির অভিজ্ঞতা ও প্রজ্ঞা থেকে উপকৃত হতে চায়।

উল্লেখ্য, রাবাব ফাতিমা ২০২০ সালে ইউনিসেফ নির্বাহী পর্ষদের সভাপতি এবং ২০২১ সালে ইউএনডিপি, ইউএনএফপিএ, এবং ইউএনওপিএসের নির্বাহী পর্ষদের ভাইস প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন।