এ আর রহমানের সঙ্গে হাবিব

‘গ্র্যামি অ্যাওয়ার্ড দেখতে আসা সার্থক’। কথাটি বললেন দেশের অন্যতম সফল ও জনপ্রিয় গায়ক-সঙ্গীত পরিচালক হাবিব ওয়াহিদ। ১১ ফেব্রুয়ারি, সোমবার সকালে নিজের ফেসবুকে একটি ছবি পোস্ট করে তিনি ক্যাপশনে জুড়ে দেন ওই কথা।

হাবিবের ক্যাপশন বলে দিচ্ছে, ছবিটা অনেক বেশি স্পেশাল। হ্যাঁ, ঠিক তাই। ছবিটিতে একসঙ্গে দেখা দিয়েছেন হাবিব ও উপমহাদেশের বিখ্যাত সঙ্গীত পরিচালক এ আর রহমান। গ্র্যামি অ্যাওয়ার্ড অনুষ্ঠানের ফাঁকে অস্কারজয়ী এই বরেণ্য শিল্পীকে সেলফিবন্দি করেন বাংলাদেশের তারকা হাবিব।  

সঙ্গীতের জন্য বিশ্বব্যাপী সবচেয়ে সম্মানজনক পুরস্কার গ্র্যামি অ্যাওয়ার্ড। ১০ ফেব্রুয়ারি, রোববার অনুষ্ঠিত হয়েছে দ্য রেকর্ডিং অ্যাকাডেমি আয়োজিত এই পুরস্কারের ৬১তম আসর। আর এই আয়োজনে অংশ নিয়েছেন হাবিব ওয়াহিদ। প্রথমবারের মতো তিনি এমন বড় আয়োজনে অংশ নিলেন। তাই অভিজ্ঞতা অনেক বেশি অন্যরকম। তবে নিজের সেলফিতে এ আর রহমানকে বন্দি করতে পেরে হাবিবের এই সফর হয়ে গেলো আরও স্মৃতিময়।

যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়া অঙ্গরাজ্যের লস অ্যাঞ্জেলস শহরের স্টেপলস সেন্টারে অনুষ্ঠিত হয়েছে গ্র্যামি অ্যাওয়ার্ড। এতে বাংলাদেশের হাবিব ছাড়াও অংশ নেন সঙ্গীত তারকা তাহসান। হাবিব ও তাহসান দুজনই এখনও লস অ্যাঞ্জেলসে রয়েছেন। চলতি সপ্তাহের শেষ দিকে তারা দেশে ফিরতে পারেন বলে জানা গেছে।

উল্লেখ্য, এ আর রহমান হচ্ছেন একজন ভারতীয় সঙ্গীত পরিচালক ও গায়ক। তার পুরো নাম আল্লাহ রাখা রহমান। তিনি হিন্দু থেকে মুসলমান হয়েছেন। ভারতীয় শাস্ত্রীয় সঙ্গীতের সঙ্গে ইলেক্ট্রনিক মিউজিক এবং পশ্চিমা মিউজিকের সমন্বয় করে তিনি এক অন্যরকম ধারার সৃষ্টি করেছেন। যেটা তাকে বিশ্বব্যাপী খ্যাতি এনে দিয়েছে। তিনি বিনোদন দুনিয়ায় সবচেয়ে সম্মানজনক পুস্কার অস্কার পেয়েছেন দুটি। এছাড়া একটি বাফটা, একটি গোল্ডেন গ্লোব,  চারটি ভারতের ন্যাশনাল ফিল্ম অ্যাওয়ার্ড এবং ১৩টি ফিল্মফেয়ার পুস্কার পেয়েছেন।

অন্যদিকে হাবিব ওয়াহিদ হচ্ছেন বাংলাদেশের গানের চলমান ধারার প্রবর্তক। লোক গানের সঙ্গে পশ্চিমা মিউজিকের সংমিশ্রণ করে তিনি ব্যাপক জনপ্রিয়তা পেয়েছেন। শোবিজের অনেকে তাকে বাংলাদেশের ‘এ আর রহমান’ বলেও অভিহিত করেন। তিনি একবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার, ছয়বার মেরিল প্রথম আলো পুরস্কার এবং একবার সিটিসেল পুরস্কার পেয়েছেন।

লেটেস্টবিডিনিউজ.কম/বিএনকে