নিষেধাজ্ঞা থেকে ফিরেই ১ নম্বরে সাকিব

বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান। ফাইল ছবি

গত মাসের ২৯ তারিখ নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে ক্রিকেটে প্রত্যাবর্তন করেছেন বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান। আর বিশ্ব ক্রিকেটে ফিরেই তিনি নিজের হারানো সিংহাসন ফিরে পেয়েছেন। উঠে এসেছেন বিশ্বসেরা অলরাউন্ডারের শীর্ষ স্থানে।

নিষিদ্ধ হওয়ার ঠিক আগ মুহূর্তেও সাকিব আল হাসান ওয়ানডে অল রাউন্ডার র‍্যাঙ্কিংয়ে শীর্ষ স্থানে ছিলেন। নিষেধাজ্ঞার সময়কালে ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিলের টেস্ট, ওয়ানডে এবং টি-টোয়েন্টি র‍্যাঙ্কিং থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছিল তার নাম। শাস্তি শেষ হওয়ায় ফের র‍্যাঙ্কিংয়ে সাকিবের নাম অন্তর্ভুক্ত করেছে ক্রিকেটের সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রক সংস্থা আইসিসি। এরই পরিপ্রেক্ষিতে ওয়ানডে ক্রিকেটের অলরাউন্ডার র‍্যাঙ্কিংয়ে শীর্ষস্থান ফিরে পেয়েছেন সাকিব।

নিষেধাজ্ঞার পূর্বে র‍্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষে ছিলেন সাকিব, তার রেটিং পয়েন্ট ছিল ৩৭৩। ক্রিকেট থেকে নির্বাসনে যাওয়ায় তার স্থলাভিষিক্ত হন আফগানিস্তানের অলরাউন্ডার মোহাম্মদ নবী। সাকিব আল হাসান ফিরে আসায় এখন দুই নম্বরে নেমে গেছেন এই আফগান ক্রিকেটার।

নিয়ম অনুযায়ী কোনো সিরিজ শেষ হলে র‍্যাঙ্কিং হালনাগাদ করে আইসিসি। গতকাল মঙ্গলবার পাকিস্তান-জিম্বাবুয়ের ওয়ানডে সিরিজ শেষ হওয়ায় র‍্যাঙ্কিং হালনাগাদ করে আইসিসি এবং এই র‍্যাঙ্কিং হালনাগাদ করার ফলে সীমিত ওভারের ক্রিকেটের সেরা অলরাউন্ডারের আসনে ফের বসেছেন সাকিব।

র‍্যাঙ্কিংয়ের তিন নম্বরে অবস্থান করছেন ইংল্যান্ডের অলরাউন্ডার ক্রিস ওকস, তার রেটিং পয়েন্ট ২৮১। ক্রিস ওকস সতীর্থ বেন স্টোকস পাকিস্তানের ইমাদ ওয়াসিমকে পাঁচে নামিয়ে চারে উঠে এসেছেন।

র‍্যাঙ্কিংয়ের ছয়ে রয়েছেন নিউজিল্যান্ডের কলিন ডি গ্র্যান্ডহোম। আফগানিস্তানের অলরাউন্ডার রশিদ খান ২৫৩ পয়েন্ট নিয়ে অবস্থান করছেন সাত নম্বরে। নিউজিল্যান্ডের মিচেল স্যান্টনার রয়েছেন আটে, ভারতের রবীন্দ্র জাদেজা নয়ে এবং জিম্বাবুয়ের শন উইলিয়ামস পাকিস্তানের বিপক্ষে দুর্দান্ত পারফরম্যান্স দেখিয়ে ঢুকে গেছেন সেরা দশে।

সূত্রঃ ক্রিকইন্ফো