খিলজি’র চরিত্রে অভিনয় করে সত্যিকারের খিলজি হয়ে গিয়েছেন রণবীর!

রণবীর সিং যে একজন গুণী অভিনেতা তা নিয়ে কারও মনে কোনো সন্দেহ নেই। সে যখনই কোনো ছবিতে অভিনয় করেন‚ সেই ছবির চরিত্রের সঙ্গে একত্ম হয়ে যান। এমনকি শ্যুটিং এর বাইরেও উনি সেই চরিত্রের মতোই আচরণ করেন।

চলতি বছরের ডিসেম্বর মাসে মুক্তি পেতে চলেছে তার পরবর্তী ছবি ‘পদ্মাবতী’। এই ছবিতে তাকে দেখা যাবে আলাউদ্দিন খিলজির চরিত্রে। খল নায়কের চরিত্রের জন্য উনি চুল‚ দাঁড়ি‚ গোঁফ বাড়িয়েছেন। যেখানেই যাচ্ছেন চোখে সুরমা লাগিয়ে যাচ্ছেন। এমনকি ছবির শ্যুটিং আরম্ভ হওয়ার আগে নিজেকে গৃহবন্দী করে রেখেছিলেন আলাউদ্দিন খিলজির চরিত্রের জন্য নিজেকে তৈরি করার জন্য।

সঞ্জয় লীলা বনশালি পরিচালিত এই ছবির শ্যুটিং শেষ হয়ে এসেছে। আজ ট্রেলার প্রকাশ পেয়েছে। ট্রেলারে সবার সংলাপ থাকলেও ছিল না রণবীরের কোন সংলাপ। আসলে প্রয়োজনও ছিল না। তার দুর্ধর্ষ চাহনি আর হিংস্র শারীরিক ভাষা প্রমাণ করেছে তিনি কি উপহার দিতে যাচ্ছেন। আর এই কাজটা তার জন্য মোটেও সহজ ছিল না তা ট্রেলার দেখেই অনুমান করা গেছে।

এদিকে ব্যাক্তি জীবনে রণবীর কিছুতেই আলাউদ্দিন খিলজির চরিত্র থেকে বেরোতে পারছেন না। এই কারণে নাকি একজন মনোবিদের সাহায্য নিতে হচ্ছে তাকে।

নিজের নাম প্রকাশ না করে এই ছবির সঙ্গে যুক্ত একজন ডেকান ক্রনিকল কে জানিয়েছেন ‘ এই চরিত্র থেকে বেরোনো রণবীরের জন্য বেশ কষ্টকর হয়ে উঠেছিল। আলাউদ্দিন খিলজির চরিত্রে অভিনয় করতে গিয়ে‚ ধীরে ধীরে এই চরিত্রের মতো করেই ভাবতে আরম্ভ করেছিল রণবীর। এই ছবির শ্যুটিং এক বছর ধরে চলছে। ফলে এই চরিত্র থেকে বেরিয়ে আসা বেশ চ্যালেঞ্জিং হয়ে গিয়েছিল। এর ফলে তার আচরণে বেশ প্রভাব পড়ছিল। তাই তার বন্ধুরা তাকে একজন সাইক্রিয়াটিস্টের সাহায্য নিজে বলে যাতে উনি খিলজির চরিত্রে থেকে বেরোতে পারেন। উনি বন্ধুদের পরামর্শ মতন ক‘দিন ধরেই একজন মনোবিদের কাছে যাচ্ছেন।’

বাংলাদেশ সময় : ১৮০০ ঘণ্টা, ০৯ অক্টোবর,  ২০১৭,
লেটেস্টবিডিনিউজ.কম/ডিএ