বিয়ের কার্ড ছেপেও যে কারণে সঙ্গীতাকে বিয়ে করেননি সালমান

বলিউডের সবচেয়ে ‘মোস্ট ওয়ান্টেড’ ব্যাচেলর বলা হয় সালমান খানকে। তার বিয়ে নিয়ে তার চেয়ে অনেক গুণ বেশি চিন্তিত তার ভক্তরা, সংবাদকর্মীরা। কাজের চেয়েও বেশি তিনি সংবাদের শিরোনাম হন বিয়ে ও প্রেম সংক্রান্ত কারণে।

তাই তিনি যেখানেই যান সেখানেই উঠে আসে বিয়ের বিষয়টি। সালমান কখনো এড়িয়ে যান, কখনো বা কৌশলী উত্তর দেন। তবে সরাসরি কিছু বলেন না কবে বিয়ে করবেন বা কেন এতদিনেও বিয়ে করেননি।

একের পর এক বান্ধবী পাল্টেছেন তিনি। ক্যারিয়ারের মতোই সফল তার প্রেম জীবন। অনেক বান্ধবী এসেছে আবার চলেও গেছে। তাদের মধ্যে অন্যতম ঐশ্বরিয়া রাই বচ্চন, সঙ্গীতা বিজলানি, ক্যাটরিনা কাইফ, সোমি আলী, ব্রুনা আবদুল্লাহ, ক্লদিয়া সিজলা, হ্যাজেল কিচ প্রমুখ।

তাদের প্রায় সবার সঙ্গেই বিয়ের কথা শোনা গেলেও কাউকেই তিনি বিয়ে করেননি। কেন? সেসব প্রশ্নের জবাব দেন না সালমান। তবে সম্প্রতি একটি অনুষ্ঠানে সঙ্গীতা বিজলানির সঙ্গে বিয়ে নিয়ে মুখ খুললেন তিনি। বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমে ইতিমধ্যেই ঘুরছে সালমানের এই বক্তব্য৷

জানা যাচ্ছে, ২০১৩ সালে সালমান কফি উইথ করণে এসেছিলেন। সে সময়ই তার ব্যক্তিগত জীবনের কিছু দিক প্রকাশ পেয়েছিল তার কথায়। করণের প্রশ্নে সালমান জানিয়েছিলেন, সঠিক সময় এলেই তিনি বিয়ে করবেন।

‘একটা সময় এসেছিল যখন সত্যিই আমি বিয়ে করতে চেয়েছিলাম। অনেকদূর এগিয়েও গিয়েছিলাম। সঙ্গীতার সঙ্গে বিয়ের কার্ড ছাপানো হয়ে গিয়েছিল। পরে বিয়েটা ভেঙে যায়’- এভাবেই বললেন সালমান। কেন ভাঙে সেই বিয়ে এর কারণ হিসেবে তার ভাষ্য, ‘মনে হয় আমি সঙ্গীতার যোগ্য ছিলাম না।’

এদিকে বর্তমানে তিনি ইউলিয়া ভান্তুর নামে এক বিদেশিনির সঙ্গে ডেট করছেন সালমান। পরিবারের সবার সঙ্গেও এই প্রেমিকাকে পরিচয় করিয়ে দিয়েছেন সালমান। 
সাল্লুর পারিবারিক অনুষ্ঠানেও অনেকবার ইউলিয়ার উপস্থিতি দেখা গেছে। কথা হলো, এই প্রেমিকাকে বউ করে ঘরে তুলবেন তো তিনি?