‘প্রধান বিচারপতিকে সরিয়ে দেয়ার পায়তারা করা হচ্ছে’

মানসিক অসুস্থতার অজুহাতে প্রধান বিচারপতিকে সরিয়ে নেয়ার ষড়যন্ত্র করছে সরকার। এ নিয়ে জনমনে শঙ্কা সৃষ্টি হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম-মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী আহমেদ। বুধবার (২৩ আগস্ট) দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবের হলরুমে বাংলাদেশ ন্যাশনাল আওয়ামী পার্টি ও বাংলাদেশ ন্যাপ আয়োজিত এক আলোচনা সভায় তিনি এ কথা বলেন।

রিজভী বলেন, ‘সরকার নির্বাচন কমিশনারের (নুরুল হুদা) মত লোক চাচ্ছে। তাই প্রধান বিচারপতি হিসেবে এমন লোক না পেয়ে এখন ক্ষুদ্ধ সরকার। তাই তাকে সরিয়ে দেয়ার পায়তারা করছে।’

তিনি বলেন, ‘সিইসি হুদা সাহেবের মত লোক তাদের দরকার। স্বাধীন সত্তা নিয়ে যদি কেউ থাকে তাকে তারা সহ্য করতে পারে না। সমাজে আজকে যে ভয়াবহ প্রতিচ্ছবি তা ষোড়শ সংশোধানীর রায়ের পর্যবেক্ষণে এসেছে। এখানেই তাদের আপত্তি। দুঃশাসনের কথা উঠে এসেছে এটাই তাদের মনের মধ্যে প্রচণ্ড যন্ত্রণা দিচ্ছে। এ জন্যই আজকে তারা প্রধান বিচারপতির পদত্যাগ চাচ্ছে।’

তিনি আরও বলেন, ‘কারণ সরকার বন্দুকের ভয় দেখিয়ে রাষ্ট্র চালাচ্ছে। জনগণের রায়ের মধ্য দিয়ে সরকার চালাচ্ছে না।’ রিজভী বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী সরে গেলে জনগণ শান্তি পাবে। কিন্তু জনগণের মনের কথা তিনি উপলদ্ধি করতে পাচ্ছেন না।’
আওয়ামী লীগের সমালোচনা করে তিনি বলেন, ‘আওয়ামী লীগ প্রথমে ভোটের অধিকার গুম করেছে। পরে বিরোধীদলের নেতাদের গুম ভয়ভীতি ও সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডের মাধ্যমে বন্দুকের জোরে ক্ষমতায় আছে।’

আয়োজক সংগঠনের মহাসচিব এম গোলাম মোস্তফা ভূঁইয়ার সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় আরও বক্তব্য দেন- বিএনপির যুগ্ম-মহাসচিব অ্যাড. সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, নির্বাহী কমিটির সদস্য আবু নাসের মোহাম্মাদ রহমতউল্লাহ, জাতীয় দলের চেয়ারম্যান অ্যাড. সৈয়দ এহসানুল হুদা, এনডিপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মঞ্জুর হোসেন ঈশা, কৃষক দলের কেন্দ্রীয় নেতা শাহজাহান মিয়া সম্রাট প্রমুখ।

বাংলাদেশ সময়: ১৫৪০ ঘণ্টা, ২৩ আগস্ট ২০১৭,

লেটেস্টবিডিনিউজ.কম/এসপি