নতুন আইনের কিছু অংশের পরিবর্তন চায় সড়ক পরিবহন সমিতি

Road Transport Act

নতুন সড়ক পরিবহন আইন বাস্তবায়নে পূর্ণ সমর্থন দেওয়ার কথা জানিয়েছে পরিবহন মালিকদের সংগঠন বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন সমিতি। তারা বলেছে, আইনে মালিক-শ্রমিক, পথচারী সবারই জরিমানা বেড়েছে। তবে এটা জানানোর জন্য আরও বেশি প্রচারণা দরকার। মানুষ এ আইনের কথা জানে না। তা ছাড়া আইনের কিছু অংশের পরিবর্তন প্রয়োজন বলেও জানিয়েছে তারা।

আজ শনিবার রাজধানীর বাংলামোটরে সমিতির কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন সমিতির সভাপতি ও জাতীয় পার্টির মহাসচিব মসিউর রহমান ওরফে রাঙ্গা। এ সময় সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের জবাব দেন সমিতির মহাসচিব খন্দকার এনায়েত উল্যাহ।

এনায়েত উল্যাহ বলেন, এখনো আইনের বিধিমালা হয়নি। ফলে এটা কার্যকর করতে গেলে সমস্যায় পড়তে হবে। এ জন্য দ্রুত বিধিমালা করার দাবি জানিয়েছেন তিনি।

আইনটিকে সাধুবাদ জানালেও এর কিছু অংশ কঠিন বলে মনে করছেন তাঁরা। তাঁরা বলছেন, এ জন্য আইনের কিছু অংশ সংশোধনের প্রয়োজন হতে পারে। যেমন সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাণহানি ও যানবাহনের আকৃতি পরিবর্তনসহ বেশ কিছু অপরাধে যে শাস্তি, তা অজামিনযোগ্য। এমনিতেই আমাদের দেশে চালকের সংকট আছে। যদি এভাবে দুর্ঘটনার পরই চালককে গ্রেপ্তার করা হয়, তাহলে সংকট আরও বাড়বে।

সম্প্রতি দুর্ঘটনার পরপরই হাইকোর্ট মালিকদের বিরুদ্ধে মোটা অঙ্কের ক্ষতিপূরণের রায় দিয়েছেন। বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন সমিতির পক্ষ থেকে বলা হয়, ক্ষতিপূরণের পরিমাণ এত বিপুল যে তা দেওয়া সম্ভব না। যদি মালিকের কাগজপত্র ঠিক থাকে, চালকেরও লাইসেন্স সঠিক হয়, সে ক্ষেত্রে মোটা অঙ্কের জরিমানা করা ঠিক না বলে জানিয়েছেন তাঁরা। কারণ এতে মালিকের কোনো দায় থাকে না।