সংসদীয় গণতন্ত্রে সুন্দর নিদর্শন স্থাপন করলেন শেখ হাসিনা

সংসদীয় গণতন্ত্রে সুন্দর নিদর্শন স্থাপন করলেন শেখ হাসিনা
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিরোধী দলীয় নেতা রওশন এরশাদের খোঁজ-খবর নিতে নিজেই চলে যান তার আসনের সামনে - সংগৃহীত ছবি

দীর্ঘদিন পর বিরোধী দলীয় নেতা রওশন এরশাদ সংসদ অধিবেশনে যোগ দিয়েছেন। গত ২৭ জুন প্রায় আট মাস থাইল্যান্ডে চিকিৎসা শেষে দেশে ফেরেন তিনি। এরপর গতকাল বুধবার (২৯ জুন) যোগ দেন সংসদ অধিবেশনে।

এসময় সংসদনেতা ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিরোধী দলীয় নেতা রওশন এরশাদের খোঁজ-খবর নিতে নিজেই চলে যান তার আসনের সামনে। খোঁজ খবর নেন, কথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রীর এমন একটি ছবি ইতোমধ্যে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে। এতে আওয়ামী লীগের সভানেত্রী প্রশংসায় ভাসছেন। অনেকেই বলছেন এটি রাজনৈতিক ও সংসদীয় গণতন্ত্রের একটি সুন্দর নিদর্শন।

এদিকে দীর্ঘ দিন পর সংসদে ফিরেই বক্তব্য রাখেন রওশন এরশাদ। এসময় পদ্মা সেতুর স্বপ্নকে বাস্তবায়নের জন্য প্রধামন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানান তিনি। বিরোধী দলীয় এই নেতা বলেছেন, পদ্মা সেতু নিয়ে অনেক কথা হয়েছিল। এটি সত্যি সত্যি বাস্তবায়িত হয়েছে। এটা শুধু সেতু নয়, এটি সক্ষমতা ও আত্মমর্যাদার প্রতীক। এটি সত্যিই প্রশংসার দাবি রাখে। এজন্য প্রধানমন্ত্রীকে প্রাণঢালা অভিন্দন জানাই।

রওশন এরশাদ আরও বলেন, পদ্মা সেতু নিয়ে অনেক কথা হয়েছে। এখন সবারই মুখে চুনকালি পড়েছে। সবার মুখ বন্ধ হয়েছে। এসময় তিনি অসুস্থ হয়ে বিদেশে থাকা অবস্থায় খোঁজ নেওয়ায় স্পিকার, রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানান ও কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।

একই সঙ্গে সিলেট-সুনামগঞ্জসহ দেশের অন্যান্য এলাকার বানভাসিদের সমস্যার স্থায়ী সমাধানে বিশেষজ্ঞদের সঙ্গে পরামর্শ করার জন্য প্রধানমন্ত্রীর দৃষ্টি আকর্ষণ করেন তিনি।