শ্রীমঙ্গলে ডাকাতি প্রতিরোধে পুলিশ-জনতার যৌথ মহড়া

Sylhet

অরবিন্দ দেব,(মেীলভীবাজার প্রতিনিধি): মৌলভীবাজারের শ্রীমঙ্গলে ডাকাতি প্রতিরোধে পুরো উপজেলা জুড়ে রাতভর পুলিশ-জনতা যৌথ মহড়া দিয়েছে।

সোমবার দিবাগত রাত সাড়ে ১২টা থেকে ভোর ৫ টা পর্যন্ত এ মহড়া দেয় শ্রীমঙ্গল থানা পুলিশ।মৌলভীবাজার জেলা পুলিশ সুপার ফারুক আহমেদ পিপিএম (বার) এর নির্দেশে এবং অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপরাধ ও প্রশাসন) হাসান মোহাম্মদ নাসের রিকাবদার এর নেতৃত্বে পুলিশ জনতার এ যৌথ মহড়া বের করা হয়।

মহড়াটি শ্রীমঙ্গল থানা থেকে বের হয়ে উপজেলার আশিদ্রোন বাজার, শিববাড়ি বাজার, সিন্দুরখান বাজার, রামনগর মনিপুরী পাড়া, সবুজবাগ, শাপলাবাগ, ভাড়াউড়া চা বাগান, মৌলভী বাজার রোড, জেডি রোড, সৌরভী পাড়া, বিরাহিমপুর, শ্যামলী আবাসিক এলাকা, ফুলছড়া চা বাগান, কালীঘাট চা বাগান, চকগাও বাজার, হুগলিয়া বাজার, মতিগঞ্জ বাজার, হবিগঞ্জ রোড এলাকা, রেল স্টেশন এলাকা, রাধানগর, জেরিন চা বাগান, বিষামনি, এবং মোহাজেরাবাদ সহ বিভিন্ন এলাকা প্রদক্ষিণ করে শ্রীমঙ্গল চৌমুহনা চত্বরে এসে শেষ হয়।

শ্রীমঙ্গল থানার অফিসার ইনচার্জ মো. আব্দুছ ছলেক এর সার্বিক সহযোগিতায় মহড়ায় উপস্থিত ছিলেন, শ্রীমঙ্গল থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মো. হুমায়ুন কবির, পুলিশ পরিদর্শক (অপারেশন) নয়ন কারকুন, উপ-পরিদর্শক মো.আল আমিন, মো. আলমগীর হোসেন, রোকনুজ্জামান সহ উপজেলার বিভিন্ন এলাকার প্রায় শতাধিক লোক।

শীতকালে চুরি-ডাকাতি বাড়তে পারে এমন আশংকা থেকে জেলা পুলিশের উদ্যোগে উপজেলার প্রতিটি পাড়া মহল্লায় স্থানীয় জনপ্রতিনিধি, রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ, ও সমাজের গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গের সাথে আলোচনা করে ডাকাত প্রতিরোধ কমিটি এবং মহল্লা ভিত্তিক পাহারার ব্যবস্থাও জোরদার করা হয়েছে।

মহড়া দেয়ার সময় শ্রীমঙ্গল থানা পুলিশের উদ্যোগে বিভিন্ন এলাকার রাত্রিকালীন পাহারাদারদের রিপ্লের্টিং জ্যাকেট পরিয়ে দেওয়া হয়। পাশাপাশি তাদের হাতে শুকনো খাবার তুলে দেয়া হয়েছে।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার হাসান মোহাম্মদ নাছের রিকাবদার বলেন, পুলিশকে সবাই সহযোগিতা করুন। পুলিশ জনগণের নিরাপত্তার কথা বিবেচনা করে ডাকাতি প্রতিরোধে প্রতিরাতে এক এলাকা থেকে অন্য এলাকায় ছুটে চলছে। তিনি বলেন সবাই সহযোগিতা করলে শ্রীমঙ্গল উপজেলাকে একটি ডাকাত মুক্ত উপজেলা হিসেবে উপহার দেওয়া।