১৪ জন বরযাত্রী নিয়ে ৫ লক্ষ ১ টাকা দেনমোহরে ঢাবি ছাত্রীকে বিয়ে করলেন মোস্তাফিজ

সবাইকে অবাক করে দিয়ে অনেক গোপনেই বিয়ের পিড়িতে বসলেন কাটার মাস্টার খ্যাত জাতীয় দলের তারকা ক্রিকেটার মোস্তাফিজুর রহমান। মাত্র ১৪-১৫ জন বরযাত্রী নিয়ে আজ দুপুর সাড়ে ৩টার দিকে পাঁচ লক্ষ এক টাকা দেনমোহর ধার্য করে মামাতো বোন সামিয়া ইয়াসমিন শিমুকে বিয়ে করেছেন ফিজ।

এর আগে দুপুরে জুম্মার নামাযের পর নিজের প্রাইভেট কারে চড়ে বাবা-মা-ভাই-বোনদের নিয়ে সোনালী শেরওয়ানি পরে বর বেশে কনের বাড়ির উদ্দেশ্যে রওনা দেন মোস্তাফিজ। দু-তিনটি মোটরসাইকেলে ছিল আরও কয়েকজন। মহানবী সা এর হাদিসের সুন্নতী মোতাবেক সর্বোচ্চ ২০ জনের নিয়ম মেনে সব মিলিয়ে ১৪-১৫ বরযাত্রী নিয়ে বিয়ে করতে আসেন মোস্তাফিজ। তার নিজ জেলা সাতক্ষীরার দেবহাটা উপজেলার হাদিপুর গ্রামে আপন মেঝ মামা সাবেক ইউপি সদস্য মো. রওনাকুল ইসলাম বাবুর বাড়িতে খুবই স্বপ্ল পরিসরে বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা শেষ হয় তার।

শিমু বর্তমানে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাইকোলজি বিভাগের অনার্স প্রথম বর্ষে অধ্যয়নরত রোকেয়া হলের শিক্ষার্থী। এদিকে, এই তারকা ক্রিকেটারের বিয়েকে ঘিরে মিডিয়া কর্মীদের সরব উপস্থিতি থাকলেও মহানবী (সা) এর হাদিস মেনে গোপনীয়তা রক্ষা করেই বিয়ের কাজটি সারতে চেয়েছিলেন মোস্তাফিজ। এজন্য কনের বাড়ি পৌঁছানোর পর ভিতরে ঢুকতে দেওয়া হয়নি সংবাদ কর্মীদের।