বিশ্ববাজারে কমায় দেশেও সয়াবিন তেলের দাম কমল লিটারে ১৪ টাকা

বিশ্ববাজারে কমায় দেশেও সয়াবিন তেলের দাম কমল লিটারে ১৪ টাকা
সয়াবিন তেল - ফাইল ছবি

বিশ্ববাজারে ভোজ্য তেলের দাম কমে যাওয়ায় দেশের বাজারেও তেলের দাম কমানোর সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। সয়াবিন তেলের দাম লিটারে ১৪ টাকা কমানো হয়েছে। নতুন দর অনুযায়ী, প্রতি লিটার বোতলজাত সয়াবিন তেলের দাম প্রায় ৭ শতাংশ কমে ১৮৫ টাকায় বিক্রি হবে।

রোববার (১৭ জুলাই) বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ে তেলের মিল ও পরিশোধনকারী প্রতিষ্ঠানের মালিকদের সঙ্গে বৈঠক থেকে সরকার নতুন দাম নির্ধারণ করে। এ পর্যন্ত বাজারে তেলের দাম ছিল ১৯৯ টাকা। আর ৯৮০ টাকার পাঁচ লিটারের বোতলের নতুন দাম হবে ৯১০ টাকা বলে জানানো হয়।

বাণিজ্য সচিব তপন কান্তি ঘোষ সাংবাদিকদের বলেন, ভোজ্য তেলের নতুন দাম আগামীকাল সোমবার থেকে কার্যকর হবে।

তিনি আরও জানান, প্রতি লিটার পাম তেলের দাম লিটারে ৬ টাকা কমে হবে ১৫২ টাকা।

এর আগে গত রোববার বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ে তেলের মিল ও পরিশোধনকারী প্রতিষ্ঠানের মালিকদের সঙ্গে বৈঠক থেকে সরকার নতুন দাম নির্ধারণ করে।

নতুন দাম অনুযায়ী, বোতলজাত সয়াবিন ১৮৫ টাকা ও পাঁচ লিটারের বোতল ৯১০ টাকা নির্ধারণ হয়। এছাড়া প্রতি লিটার পাম তেলের দাম ৬ টাকা কমিয়ে ১৫২ টাকা করা হয়েছে।

গত ২৬ জুন বোতলজাত সয়াবিন তেলের দাম লিটারে ৬ টাকা কমিয়ে ১৯৯ টাকা নির্ধারণ করে ভোজ্যতেল পরিশোধন ও বাজারজাতকারী প্রতিষ্ঠানগুলোর মালিকদের সংগঠন বাংলাদেশ ভেজিটেবল অয়েল রিফাইনার্স অ্যান্ড বনস্পতি ম্যানুফ্যাকচারার্স অ্যাসোসিয়েশন।

বোতলজাত সয়াবিন তেলের গত ৯ জুন দাম লিটারে ৭ টাকা বাড়ানো হয়। মূল্যবৃদ্ধির পর ওই সময় এক লিটার খোলা সয়াবিন তেলের সর্বোচ্চ খুচরামূল্য নির্ধারণ করা হয় ১৮৫ টাকা। বোতলজাত এক লিটার সয়াবিনের সর্বোচ্চ খুচরামূল্য নির্ধারণ করা হয় ২০৫ টাকা।