মানবিক সংকটের মুখে ৪২ দেশ, শীর্ষে ইয়েমেন

২০১৯ সালে সবচেয়ে প্রকট মানবিক সংকটের সম্মুখীন হতে চলেছে বিশ্বের ৪২টি দেশ। এসব দেশের প্রায় ১৩ কোটি ২০ লাখ মানুষের প্রয়োজন হবে মানবিক সহায়তা ও সুরক্ষার। আর মানবিক সংকটের মুখে থাকা দেশগুলোর তালিকায় শীর্ষে রয়েছে যুদ্ধ জর্জরিত ইয়েমেন।

আল জাজিরার খবরে বলা হয়, জাতিসংঘের তালিকায় সবচেয়ে বিপর্যস্ত দেশের তালিকার শীর্ষে উঠে এসেছে ইয়েমেন। দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে যুদ্ধবিধ্বস্ত আরেক দেশ আফগানিস্তান। তৃতীয় ও চতুর্থ অবস্থানে রয়েছে যথাক্রমে ক্যামেরুন ও সেন্ট্রাল আফ্রিকান রিপাবলিক (সিএআর)। জাতিসংঘ বলছে, আসন্ন মানবিক সংকট সামলাতে পরবর্তী বছর প্রয়োজন হবে ২ হাজার ১৯০ কোটি ডলার।

মঙ্গলবার জেনেভায় গ্লোবাল হিউম্যানিটারিয়ান ওভারভিউ ফর ২০১৯ উপস্থাপন করেন জাতিসংঘের জরুরি ত্রাণ সমন্বয়কারী মার্ক লোকক। এসময় তিনি বলেন, জাতিসংঘ ও এর সহযোগী সংগঠনগুলো সবচেয়ে বিপন্ন অবস্থায় থাকা ৯ কোটি ৩৬ লাখ মানুষের জন্য খাদ্য, আশ্রয়, স্বাস্থ্যসেবা, জরুরি শিক্ষা, সুরক্ষা ও অন্যান্য মৌলিক সহায়তা দেবে।

মার্ক লোকক বলেন, আমরা ২০১৮ সালে যেসব মানবিক সংকট দেখেছি, এর বেশিরভাগই আগামী বছরও দেখব। কেননা এসব সংকট সমাধানে তেমন কোনো অগ্রগতি হয়নি।

জাতিসংঘের জরুরি ত্রাণ সমন্বয়কারী বলেন, আমাদেরকে এসব সংকটের পেছনে লুকিয়ে থাকা কারণগুলো দূর করার ক্ষেত্রে আরও জোর প্রচেষ্টা চালাতে হবে। তিনি জানান, এসব কারণের মধ্যে রয়েছে সংঘাত, দারিদ্র্য, জলবায়ু পরিবর্তন, খাদ্য অনিশ্চয়তা ও উন্নয়নমূলক কর্মসূচির ব্যর্থতা।

লোকক বলেন, বিশ্বজুড়ে বর্তমানে সংঘাতের কারণে বাস্তুচ্যুত হয়েছে প্রায় ৭ কোটি মানুষ। আগের যেকোনো সময়ের চেয়ে এই সংখ্যা বেশি। এর সঙ্গে বেড়েছে লিঙ্গ বৈষম্য। মানবিক সংকটে আক্রান্ত এলাকাগুলোতে স্কুল থেকে ঝড়ে পড়ছে সিংহভাগ মেয়ে শিক্ষার্থী।

লেটেস্টবিডিনিউজ.কম/কেএস