সিনেট থেকে পদত্যাগ করছেন কমলা হ্যারিস

ইন্টারনেট সংগৃহীত ছবি

চলতি মাসের ২০ তারিখে নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের সঙ্গে শপথ নেবেন কমলা হ্যারিস। আর এ জন্য ১৮ জানুয়ারি, সোমবার নিজের সিনেট আসন থেকে পদত্যাগ করছেন তিনি। যুক্তরাষ্ট্রের ৪৯তম ভাইস প্রেসিডেন্ট হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন কমলা হ্যারিস। যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে প্রথমবারের মতো কোনো নারী ভাইস প্রেসিডেন্ট হিসেবে হোয়াইট হাউসে যাচ্ছেন। এ কারণে সোমবার নিজের সিনেট আসন থেকে পদত্যাগ করছেন তিনি।

ব্রিটিশ এক গণমাধ্যমের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, কমলা হ্যারিস একাধারে একজন বর্ষীয়ান অধিকারকর্মী, একজন আইনজীবী এবং একজন রাজনীতিক। আর সে সঙ্গে তার নামের সঙ্গে যুক্ত হয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের প্রথম নারী ভাইস প্রেসিডেন্ট পদবি। তিনিই প্রথম কৃষ্ণাঙ্গ নারী, প্রথম এশিয়ান বংশোদ্ভূত মার্কিন নারী যিনি যুক্তরাষ্ট্রের ভাইস প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হয়েছেন। ক্যালিফোর্নিয়ার একজন জুনিয়র সিনেটর নির্বাচিত হওয়ার চার বছর পরে সোমবার তিনি সেই আসন থেকে পদত্যাগ করছেন।

যুক্তরাষ্ট্রের নবনির্বাচিত ভাইস প্রেসিডেন্ট কমলা হ্যারিসের জন্ম ১৯৬৪ সালের ২০ অক্টোবর যুক্তরাষ্ট্রের ওকল্যান্ডে। তার বাবা জ্যামাইকান ও মা ভারতীয়। দীর্ঘ কর্মজীবনে অনেক প্রশ্নের জন্ম দিয়েছেন কামালা। ১৯৯০ সালে ওকল্যান্ডের ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল হিসেবে যাত্রা শুরু হয় তার। ২০১০ সালে প্রথম নারী, প্রথম কৃষ্ণাঙ্গ আমেরিকান হিসেবে ক্যালিফোর্নিয়ার অ্যাটর্নি জেনারেল পদে জয়ী হন কামালা। ২০১৬ সালে ক্যালিফোর্নিয়ার সিনেটর নির্বাচিত হয়ে পা রাখেন যুক্তরাষ্ট্র কংগ্রেসের উচ্চকক্ষে।

এতে শুরু হয় নতুন যাত্রা। তারপর স্বপ্ন দেখেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট হওয়ার। এরই অংশ হিসেবে ২০১৯ সালেই মার্কিন নির্বাচনে প্রেসিডেন্ট প্রার্থী হতে আগ্রহ প্রকাশ করেন কমলা। মনোনয়ন লড়াইয়ের শুরুর দিকে একের পর এক বক্তব্যে তিনি সবার নজরেও আসেন।