হজের বিশেষ নির্দেশনা সৌদি সরকারের

Hajj

হজ ইসলাম ধর্মাবলম্বী অর্থাৎ মুসলমানদের জন্য একটি আবশ্যকীয় ইবাদত বা ধর্মীয় উপাসনা। এটি ইসলাম ধর্মের চতুর্থ স্তম্ভ। মহামারি করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ রোধ করতে বিশেষ নির্দেশনা দিয়েছে মধ্য প্রাচ্যের দেশ সৌদি সরকার। তারা বলছে, এ বছর শুধু ১৮ থেকে ৬০ বছর বয়সীরা হজে অংশ নিতে পারবেন। আর ১৮ বছরের নিচে এবং ৬০ বছরের ওপরে কেউ অংশ নিতে পারবেন না।

সম্প্রতি সৌদি আরব থেকে প্রকাশিত ওকাজ পত্রিকা বিশ্বস্ত সূত্রের বরাত দিয়ে এ তথ্য দিয়েছে।

তারা জানিয়েছে, হজে অংশগ্রহণকারীদের সৌদি আরবে অবতরণের কমপক্ষে এক সপ্তাহ আগে করোনা ভ্যাকসিনের দ্বিতীয় ডোজ গ্রহণ করতে হবে।

এ ছাড়া সৌদি আরবে অবতরণের ৭২ ঘণ্টা আগে করা কোভিড-১৯ পিসিআর টেস্টের নেগেটিভ রিপোর্টও সঙ্গে রাখতে হবে এবং সৌদি আরবে আসার পর ৭২ ঘণ্টা কোয়ারেন্টিনে থাকতে হবে।

দেশটির হজ ও ওমরাহ মন্ত্রণালয়ের তথ্য অনুযায়ী প্রতিটি গ্রুপ হবে ১০০ জনের। সৌদিতে গিয়ে আবার পিসিআর টেস্ট করতে হবে এবং নেগেটিভ রিপোর্ট আসার পর কোয়ারেন্টিন সমাপ্ত করতে হবে।

হজের সময় স্বাস্থ্য প্রটোকল প্লান অনুযায়ী হাজী এবং হজের কর্মীরা আলাদা ব্যাজ পরিধান করবেন। পাশাপাশি পরস্পরের মাঝে অন্তত দেড় মিটার দূরত্ব রাখতে হবে বলে সৌদি সরকারের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।