আগামী ১৪ এপ্রিল থেকে ‘কঠোর লকডাউন’ না ‘সাধারণ ছুটি’?

Strict lockdown

বৈশ্বিক মহামারি করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ রোধে আগামী ১৪ এপ্রিল থেকে কঠোর লকডাউনের ঘোষণার কথা আগেই জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। তবে সেই লকডাউনে সাধারণ ছুটি থাকতে পারে বলে আলোচনা চলছে।

প্রথম দফায় ৫ থেকে ১১ এপ্রিল পর্যন্ত সরকার লকডাউন ঘোষণা করে। পরে চলমান লকডাউনের ধারাবাহিকতা ১২ ও ১৩ এপ্রিলও চলবে বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

তবে করোনা সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় সরকার কঠোর লকডাউন বা সাধারণ ছুটির দিকে যাচ্ছে।

এ নিয়ে রোববার (১১ এপ্রিল) বিকেলে সচিবালয়ে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগে মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলামের সভাপতিত্বে একটি সভা চলছে। সভায় সাধারণ ছুটির বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়া হতে পারে।

মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম বিকেল ৫টার দিকে বলেন, আমি মিটিংয়ে আছি।

মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের এক কর্মকর্তা জানান, ১৪ এপ্রিল থেকে সরকারি, বেসরকারি ও স্বায়ত্তশাসিত প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকবে। গণপরিবহন ও ব্যাংক বন্ধ থাকবে। তবে গার্মেন্টসসহ শিল্প-কারখানা খোলা থাকবে। জরুরি সেবা দেয়া প্রতিষ্ঠানগুলো খোলা থাকবে।

প্রাথমিকভাবে সাত দিনের জন্য এই লকডাউন দেওয়া হচ্ছে। পরবর্তী সময়ে এর মেয়াদ বাড়ানো হবে বলেও জানান ওই কর্মকর্তা।

১১ এপ্রিল দেশে করোনা সংক্রমণে মারা যায় ৭৮ জন এবং নতুন করে আক্রান্ত হিসেবে শনাক্ত হয়েছেন ৫ হাজার ৮১৯ জন।