পুত্র সন্তানের মা হলেন পিয়া জান্নাতুল

Jannatul Ferdoush Peya

মা হলেন দেশের জনপ্রিয় মডেল অভিনেত্রী পিয়া জান্নাতুল। আজ রোববার (৭ ফেব্রুয়ারি) বিকেল ৩টা ৪৭ মিনিটে রাজধানীর ইউনাইটেড হাসপাতালে পুত্র সন্তানের জন্ম দেন এই অভিনেত্রী।

এ খবর নিশ্চিত করেছেন পিয়ার মা মাহবুবা চৌধুরী। তিনি বলেন, বর্তমান মা ও ছেলে দু’জনই ভালো আছে। সবাই তাদের জন্য দোয়া করবেন।

বাংলাদেশি তারকাদের মধ্যে প্রথমবার বেবিবাম্প ফটোশুট করে সাড়া ফেলেন পিয়া জান্নাতুল। গোটা সময়টাতে নানান আলোচনা-সমালোচনার জন্ম দিয়ে নিজের মতো করে এগিয়ে গিয়েছেন তিনি। সাইবার বুলিংয়ের শিকারও হয়েছেন পিয়া। যদিও এসবের পরোয়া তিনি করেন না।

গর্ভকালীন মায়ের যত্নের প্রচলিত ধারণা অনেকটাই ভেঙে দিয়েছেন পিয়া। স্বাভাবিক কাজকর্ম থেকে নিজেকে গুটিয়ে নেননি তিনি। নিয়ম মেনে শরীরচর্চা করেছেন। জর্জকোর্টে আইনপেশাতেও নিয়মিত ছিলেন তিনি। এ নিয়ে অনেকে আপত্তিকর কথা বলেছেন, নানান উদ্ভট পরামর্শও দিয়েছেন। এ বিষয়ে পিয়া বলেন, আমি যা করছি, জেনে-বুঝে করছি। এ বিষয়ে আমার প্রশিক্ষক আছে। দেশের বাইরে এ বিষয়ে অভিজ্ঞদের কাছ থেকে পরামর্শ নিচ্ছি। আমাকে অযথা জ্ঞান দিতে আসবেন না। নিজের জীবনটাকে সুন্দর করার চেষ্টা করুন।

পিয়া বলেন, প্রেগন্যান্সি কোনো অসুস্থতা নয় বরং একজন মেয়ে কতখানি পাওয়ারফুল তার প্রমাণ। তাই এই অবস্থায় সমাজ থেকে নিজেকে দূরে না থেকে, কে কী বলবে না ভেবে, আরও সামনে এগিয়ে আসা উচিত -নিজের শক্তি নিয়ে। আমার কাছে গর্ভাবস্থা মানে গর্ব, মেয়েদের একান্ত সৌন্দর্য আর শক্তি।

২০০৭ সালে সুন্দরী মিস বাংলাদেশ হিসেবে আলো ঝলমলে জগতে আবির্ভূত হন জান্নাতুল পিয়া। এরপর মডেলিং দিয়ে তার ক্যারিয়ার শুরু হয়। নাটক, সিনেমা ও বিজ্ঞাপনসহ ওয়েব কনটেন্টেও তাকে কাজ করতে দেখা গেছে। ২০১২ সালে রেদোয়ান রনির ‘চোরাবালি’ সিনেমার মধ্য দিয়ে চিত্রজগতে তার আগমন ঘটে। এরপর আরও কিছু সিনেমা, নাটক ও মিউজিক ভিডিওতে দেখা গেছে তাকে। বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) বেশ কয়েকটি আসরে তাকে উপস্থাপিকা হিসেবে কাজ করেছেন তিনি।

জ্যোতি ছড়িয়ে এগিয়ে যাচ্ছেন …

জান্নাতুল পিয়া অভিনীত সিনেমাগুলোর মধ্যে রয়েছে ‘চোরাবালি’ (২০১২), ‘দ্য স্টোরি অব সামারা’ (২০১৫), ‘গ্যাংস্টার রিটার্নস’ (২০১৫), ‘প্রবাসীর প্রেম’ (২০১৫), ‘ছিটমহল’ (২০১৬), ‘প্রেম কি বুঝিনি’ (২০১৭)।