করোনা: প্রতি জেলায় পিসিআর ল্যাব স্থাপন চেয়ে হাইকোর্টে রিট

coronavirus

মহামারী করোনা তাণ্ডবে গোটা দেশে বিরাজ করছে অস্থিতিশীল পরিবেশ। তাই দ্রুত করোনা রোগী শনাক্ত করতে প্রত্যেক জেলা হাসপাতালে একটি করে পিসিআর ল্যাব স্থাপনের নির্দেশনা চেয়ে হাইকোর্টে রিট আবেদন করা হয়েছে।

বিচারপতি এম. ইনায়েতুর রহিমের ভার্চুয়াল হাইকোর্ট বেঞ্চে এই রিট আবেদন দাখিল করা হয়েছে। স্বাস্থ্য এবং অর্থ সচিবকে বিবাদী করে আজ বৃহস্পতিবার (১৮ জুন) সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী অ্যাডভোকেট মো. মনিরুজ্জামান লিংকন রিট আবেদনটি দাখিল করেছেন।

ল্যাব স্থাপনে এক মাসেরও বেশি সময় আগে নোটিশ দেওয়ার পরও কোনো পদক্ষেপ না নেওয়ায় এই রিট আবেদন করা হয়েছে বলে জানান রিট আবেদনকারী আইনজীবী। নোটিশ পাওয়ার পাঁচ দিনের মধ্যে ল্যাব স্থাপনের জন্য প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নিতে গত ৬ মে ই-মেইলে সংশ্লিষ্ট দুই সচিবকে আইনি নোটিশ পাঠানো হয়।

রিট আবেদনের বিষয়ে অ্যাডভোকেট লিংকন বলেন, দেশের সকল জেলায় করোনা ভাইরাস সংক্রমিত হয়েছে। ইতোমধ্যে দেশে ৯০ হাজারেরও বেশি মানুষ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। আর প্রত্যেক জেলা শহরে পিসিআর ল্যাব না থাকায় এক জেলা থেকে নমুনা সংগ্রহ করে অন্য জেলায় পাঠানো হচ্ছে।

একারণে রিপোর্ট আসতে ৭ থেকে ১০ দিন সময় লেগে যাচ্ছে। এই সময়ের মধ্যে কোনো ব্যক্তি সংক্রমিত কি-না, তা চিহ্নিত করা সম্ভব হচ্ছে না। ফলে সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিকে আইসোলেশনে পাঠানো হচ্ছে না বা তার চিকিৎসার সুযোগ সৃষ্টি হচ্ছে না। এই সংক্রামক ব্যাধি প্রতিরোধের একমাত্র পদ্ধতি আইসোলেশনে থাকা। কিন্তু আক্রান্ত ব্যক্তি সাধারণভাবে চলাফেরা করার কারণে অধিক সংখ্যক মানুষ সংক্রমণের আশঙ্কা থেকে যাচ্ছে।

অ্যাডভোকেট লিংকন আরো বলেন, এই ব্যাধিতে অধিক সংখ্যক মানুষ সংক্রমিত কি-না, তা পরীক্ষা করা ছাড়া এই ভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধ করা সম্ভব না। এই মুহূর্তে সবচেয়ে জরুরি তাৎক্ষণিকভাবে রোগীকে চিহ্নিত করা এবং তা দ্রুত পরীক্ষার মাধ্যমেই সম্ভব। তাই রোগী শনাক্ত করার জন্য প্রত্যেক জেলা সদরের হাসপাতালে পিসিআর ল্যাব স্থাপন করা অত্যন্ত জরুরি।